২৭, অক্টোবর, ২০২১, বুধবার

ক্যান্সারে আক্রান্ত ছেলেকে বাঁচাতে অসহায় বাবা-মার আকুতি

আরিফ প্রধান : এখনো বাঁচার স্বপ্ন দেখছে ব্লাড ক্যান্সারে আক্রান্ত নবম শ্রেণীর মেধাবী শিক্ষার্থী ছালমান আহমেদ রাতুল (১৪)। গাজীপুরের শ্রীপুর পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ডের লোহাগাছ গ্রামের মোঃ মাসুম মিয়ার সন্তান রাতুল শ্রীপুর সদরের মোহাম্মদ আলী একাডেমির নবম শ্রেণীর শিক্ষার্থী।

চিকিৎসার জন্য সহযোগিতার হাত বাড়ানোর আকুতি জানিয়েছে ব্লাড ক্যান্সারে আক্রান্ত স্কুল ছাত্র রাতুল। ইতিমধ্যে রাতুলের চিকিৎসা বাবদ অনেক টাকা খরচ করেছেন তার পরিবার। বর্তমানে বাড়ির জমিটুকু ছাড়া আর কিছুই নেই রাতুলের পরিবারের। রাতুলের চিকিৎসা খরচ চালাতে পারছেনা তার পরিবার। ছেলেটিকে বাঁচাতে উন্নত চিকিৎসার প্রয়োজন তাই দেশের বিত্তবানদের কাছে সহযোগীতা চেয়েছে অসহায় পিতা মাসুম মিয়া।

রাতুলের বাবা মাসুম মিয়া পেশায় ভাড়ায় সিএনজি চালক,তার এক ছেলে ও দুই মেয়ের মধ্যে রাতুল সবার বড়। মাসুম মিয়া জানান, রাতুল সম্পন্ন সুস্থ্য ছিলো গত চার মাস আগে হঠাৎ অসুস্থ্য হয়ে পরে। তার পিঠে মেরুদণ্ডে ব্যাথা শুরু হয় পরবর্তীতে হাটু সহ শরীলের বিভিন্ন স্থানে ব্যাথা শুরু হয়। প্রথমে তাকে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমেদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা করানো হয়।

পরে গত ৫ এপ্রিল ঢাকা পিজি হাসপাতালে বিভিন্ন পরিক্ষা নিরিক্ষা শেষে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন তার ব্লাড ক্যান্সার হয়েছে। আমি ইতিমধ্যে নিজে ও বিভিন্ন জনের কাছথেকে ধার দেনা করে প্রায় ৪ লাক্ষ টাকা খরচ করেছি। ডাক্তার বলেছে তাকে বাঁচাতে হলে অনেক টাকার প্রয়োজন। আমার ছেলেকে বাঁচাতে সমাজের বিত্তবানদের সহযোগীতা চাই। আমার কোন ব্যাংক হিসাব নেই। এটা আমার মোবাইল নান্বার:- ০১৯৩৬৪৬৩৯২১।

রাতুলের মা জানান, ছেলের ক্যান্সার হয়েছে এটা শুনার পর থেকেই আমাদের পরিবারের কেউ ভালো নেই।তাকে চিকিৎসা করার জন্য অনেক টাকা প্রয়োজন। আমাদের পরিবারের সেই সামর্থ্য নেই।তাই ছেলের জন্য সাহায্য চাই। সবার দোয়া চাই। সকলের আর্থিক সহযোগিতা পেলে রাতুল সুস্থ্য হবে।

সর্বশেষ নিউজ