১৭, সেপ্টেম্বর, ২০২১, শুক্রবার

জাজিরায় পালেরচরে সন্ত্রাসী হামলায় বসতি বাড়ি ভাঙচুর ও স্বর্ন অলংকার লুটপাট,মহিলা সহ-গুরুতর আহত ৫

শরীয়তপুর প্রতিনিধিঃ আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে শরীয়তপুর জেলার জাজিরা উপজেলার পালেরচর ইউনিয়নের ৪ নংওয়ার্ডের মোল্লা কান্দি গ্রামে একটি নিরীহ পরিবার,খবির মোল্লা(৭০) বৃধাকে কুপিয়ে ও পিটিয়ে মারাক্ত জখম করেন। এমনকি হামলায় বাধা দিলে খবির মোল্লার পরিবারে উপর উপর,প্রতিপক্ষের সন্ত্রাসী সোবহান মোল্লা নেতৃত্ব হামলা চালানো হয়,এসময় হামলা কারিরা খবির মোল্লার বসত বাড়ি ভাঙচুর ও লুটপাটের ঘটনা ঘটায়। এসময় জুয়েল মোল্লার স্ত্রী-সাথী আক্তারের গলায় থাকা স্বর্নের চেইন ও হাতে থাকা এন্ডুুয়েড একটি মোবাইল ছিন্তাই করে সন্ত্রাসী সোবহান বাহীনী।

এসময় সন্ত্রাসীদের অতর্কিত হামলায় খবির মোল্লা সহ গুরুতরো আহত হন,হুমায়ন মোল্লা,আতিক মোল্লা,তোফাজ্জেল মোল্লা,জুলহাস মোল্লা। সহ -খবির মোল্লার বড়ো মেয়ে রাজিয়া আক্তার। তাদের মধ্যে ৩ জনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১০ টার দিকে ওই এলাকার সোবহান মোল্লার বসত বাড়িতে জোরপূর্ব পরিকপ্লিত ভাবে পাতানো দরবার সাজিয়ে,দরবার কমিটির সভাপতি খুদ্র মুদি দোকানদার তোতা মোল্ল,পালেচর ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ড মেম্বার আলঙ্গীর মোল্লা সহ এলাকার গন্যম্যা বেক্তির উপস্থিতিতে এই নেকার জনক সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর এলাকাবাসী আহতদের জাজিরা উপজেলা সাস্থ্যকমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। পড়ে বাকি তিনজনকে হুমায়ন মোল্লা,আতিক মোল্লা,তোফাজ্জেল মোল্লা,আশঙ্কাজনক হওয়ায় পরে তাদেরকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানন্তর করা হয়। জাজিরা উপজেলা হাসপাতালের জরুরি বিভাগের ডাক্তার জানান, আহতদের শরীরে অসংখ্য জখম রয়েছে। ৩ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক,তাই ঢাকায় পাঠানো হয়েছে ।

জাজিরা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আজহারুল ইসলাম জানান, তুচ্ছ ঘটনার জের ধরে দু-গ্ররুপের মধ্যে হামলার ঘটনা ঘটেছে,উভায় গ্ররুপে মামলা হয়েছে, আমার পুলিশ আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চালাচ্ছেন।

সর্বশেষ নিউজ