১৭, সেপ্টেম্বর, ২০২১, শুক্রবার

পরীমণির বাসার সামনে ভিড়, ভেতরের খবর নিয়ে ধোঁয়াশা

বুধবার বিকাল চারটার কিছু পর অভিনেত্রী পরীমণির বাসায় অভিযান শুরু করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। এই খবর সংগ্রহ করতে তার বাসার সামনে এখন গণমাধ্যম কর্মীদের ভিড়। সেখানে থাকা টেলিভিশন, পত্রিকা এবং অনলাইন পোর্টালগুলোর সংবাদ কর্মীদের সাথে কথা বলে জানা যায়, বাসার ভেতরের অবস্থা সম্পর্কে কিছুই জানেন না তারা।

পরীমণির বাসার সামনে থাকা নাগরিক টেলিভিশনের একজন রিপোটারের কাছে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি বলেন, এখানে আমাদের দুটি ইউনিট এসেছে। একটি বিনোদন ভিটের, অন্যটি ক্রাইম ভিটের কিন্তু ভেতরের অবস্থা নিয়ে এখনো পর্যন্ত ধোঁয়াশার মধ্যে আছি আমরা। একই ধরণের বক্তব্য পাওয়া গেছে চ্যানেল টোয়েন্টি ফোর এবং ইন্ডিপেনডেন্ট টেলিভিশনের রিপোটারের সাথ কথা বলে। তারা বলছেন, শুনেছি পরীমণিকে গ্রেফতার করা হবে। কিন্তু র‌্যাব এখন পর্যন্ত এ ব্যপারে আনুষ্ঠানিক কোনো বক্তব্য দেয়নি।

বুধবার বিকেল চারপার কিছুপর র‌্যাব পরীমণির বাসায় প্রবেশ করে।

ঘটনাস্থলে উপস্থিত কয়েকজন সাংবাদিকের সাথে কথা বলে জানাযায়, পরীমণির বাসার গেটের বাইরে র‌্যাবের সদস্যরা অবস্থান নেয় বুধবার বিকাল পৌনে তিনটার দিকে। তার বাসা ঘিরে রেখেছেন র‌্যাব সদস্যরা । প্রথমে বাসার গেট খুলতে চাননি পরীমণি। পরে র‌্যাব সদস্যদের পরিচয় জানতে পেরে বাসার গেট খুলে দেন তিনি। এখন র‌্যাব সদস্যরা তার বাসার ভেতরে অবস্থান করছেন।

এর আগে ফেসবুক লাইভে এসে পরীমণি বলেন, ‘কারা যেন আমার বাসায় ঢোকার চেষ্টা করছে। কেউ কালো কাপড় পরে আছেন, কেউ রঙিন কাপড় পরে আছেন। এরা কারা ভাই? আমি লাইভ কাটছি না।’

পরীমণি বলেন, ‘পুলিশ হলে তো দরজা খুলেই দিবো। কিন্তু তারা তো পরিচয় দিচ্ছে না। মেরে ফেললে সবার সামনে মেরে ফেলে যাক। আমি লাইভ কাটব না। সবাই দেখুক। সবাইকে দেখায় দেব, এরা কী কী করে।’

এ সময় পরীর বাসার দরজা ধাক্কার শব্দ পাওয়া যায়। পরীমণি বলেন, ‘ভাই আপনারা কিছু দেখতেসেন না, কিছু বলতেসেন না। আমি যে কী পরিমাণ সিক। তিন দিন ধরে বিছানা থেকে উঠতে পারছি না। আমার পরিচিতরা কী আসবেন? একটু দেখবেন, এরা কারা। লিটারেলি আমার দরজা ভাঙচুর করতেসে।’

সর্বশেষ নিউজ