২৪, অক্টোবর, ২০২১, রোববার

পূর্ব শত্রুতার জের ধরে অগ্নিসংযোগ ও বিষ প্রয়োগে লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি

এসএম বাচ্চু,তালা::পূর্ব শত্রুতার জের ধরে আমজাদ আলী শেখ’র বিলের মৎস্য ঘেরে অগ্নিসংযোগ ও বিষ প্রয়োগের লক্ষাধিক টাকার ক্ষতিসাধন হয়েছে।এ ঘটনায় বুধবার সকালে ভুক্তভোগী আমজাদ শেখ তালা থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।

উপজেলার ধুলন্ডা গ্রামের মৃত.আফছার আলী শেখ’র ছেলে মো.আমজাদ আলী শেখ জানান,তালা উপজেলার জেঠুয়া (পশ্চিমপাড়া) বিলে তার ৫বিঘার একটি মৎস্য ঘের রয়েছে। এখানে তিনি ১ বছরের অধিক সময় ধরে মাছ, ধান ও ফসল চাষ করেন। এই ঘের নিয়ে পার্শ্ববর্তী নেহালপুর গ্রামের মৃত আমীর আলী শেখ’র ছেলে মো. আকবর শেখ এবং মৃত. বরকত উল্লাহ গাজী’র ছেলে হাকিম গাজী, হামিদ গাজী ও হালিম গাজী সাথে বিরোধ শুরু হয়।

এবিষয়ে জালালপুর ইউনিয়ন পরিষদের গ্রাম আদালতে প্রায় ১০ মাস আগে সালিশ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সালিশে- আকবর শেখ ঘের মালিক আমজাদ শেখকে কোনও ক্ষতিসাধন বা হয়রানী করবে না বলে অঙ্গিকার করেন। কিন্তু সেই অঙ্গিকার ভঙ্গ করে সে বিভিন্ন সময়ে আমজাদ আলীকে হয়রানীর চেষ্টা সহ নানান হুমকি দিচ্ছিল। যার প্রেক্ষাপটে গত ১৫ এপ্রিল আমজাদ আলী বাদী হয়ে তালা থানায় একটি জিডি (৫১৫/২১) করেন।

আমজাদ শেখ আরও জানান, গত মঙ্গলবার গভীর রাতে প্রতিবেশীর কাছ থেকে সংবাদ পেয়ে ঘেরে যেয়ে দেখি, কে বা কারা ঘেরের বাসায় আগুন ধরিয়ে দিয়েছে। এতে ওই বাসায় থাকা কাপড়চোপড়, আসবাবপত্র ও মাছের খাবার সহ বাসার জমিতে রোপন করা বোরো ধান পুড়ে ভষ্মিভূত হয়। একই সাথে দূর্বৃত্তরা ঘেরের ক্যানেলে বিষ প্রয়োগ করায় মুহুর্তের মধ্যে প্রায় ৭০ হাজার টাকার রুই, কাতলা, মৃগেল, গলদা সহ বিভিন্ন প্রজাতীর মাছ মরে ভেঁসে ওঠে। ঘের সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষরা পরিকল্পিত ভাবে অগ্নিসংযোগ ও বিষ প্রয়োগ করেছে বলে ভুক্তভোগী আমজাদ আলী শেখ অভিযোগ করেছেন।

এবিষয়ে তালা থানার ওসি মো. মেহেদী রাসেল জানান, এ ব্যপারে অভিযোগ পেয়েছি। ঘটনার তদন্ত করে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।এদিকে, ঘেরে বিষ প্রয়োগ এবং অগ্নিসংযোগের সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন, মাগুরা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান গনেশ দেবনাথ ও সহাকারী অধ্যাপক মো. সাঈদুর রহমান সাঈদ সহ এলাকার বিশিষ্ট ব্যক্তিরা।

সর্বশেষ নিউজ