৭, জুলাই, ২০২২, বৃহস্পতিবার

শ্রীপুরে ভূমি কর্মকর্তার নানা অনিয়ম

আরিফ প্রধান, গাজীপুর : গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার রাজাবাড়ি ইউনিয়ন ভূমি অফিসের উপ-সহকারী কর্মকর্তা আল আমিনের বিরুদ্ধে একাধিক অনিয়মের প্রমাণ পেয়েছে পরিদর্শন কর্মকর্তা মতিয়ার রহমান।

পরিদর্শন প্রতিবেদনে জানাযায়, বনের গেজেটভুক্ত ভূমির নামজারি-জমাভাগ প্রস্তাব প্রেরণ ও ভূমি উন্নয়ন কর আদায় নিষিদ্ধ থাকা সত্বেও হালুকাইদ মৌজার ১০/১, খতিয়ানে এসএ ২০৯, আর এস ৬৪, ৬৬ দাগে ৭ নং জোতে সরকারের স্বার্থ ক্ষুন্ন করে জনৈক আনছার আলীর কাছ থেকে এল ০২৭৬৭৭ নং আরআর (রাজস্ব রেজিস্ট্রার) মূলে ০.৪০ একর জমির ২৪৫৩ টাকা ভূমি উন্নয়ন কর আদায় করেন।

জয়নারায়নপুর মৌজার ৮০/২৮ নং খতিয়ানের ২৮ নং পিও (পূর্বতন) জোত থেকে ১০৪/২০-২১ নং নামজারি ও জমাভাগের নথিমূলে এসএ ১০২ আরএস ১১৫ নং দাগে ০.৭৯ একর ভূমির অনুকূলে কমর উদ্দিন গং এর নামে একটি পৃথক খতিয়ান (যার জোত নং-৮২৪) সৃজন করেন। উক্ত খতিয়ানের পূর্বতন জোতে প্রায় ৫০ বছরের (বাংলা ১৩৭৯ সন থেকে ) ভূমি উন্নয়ন কর বকেয়া ছিল। সুদসহ যার ভূমি উন্নয়ন কর দাঁড়ায় ১০ হাজার ১২৮ টাকা। অথচ তিনি গত বছর ১১ নভেম্বর ডব্লিউ ৫০৪৯৮৭ নং আরআর মূলে মাত্র ১০ টাকা ভূমি উন্নয়ন কর আদায় দেখান।

ভূমি অফিসের ২ নং রেজিস্ট্রারের ২৯ নম্বর পৃষ্ঠায় ১০ টাকা জমা দেখানো হলেও অসৎ উদ্দেশ্যে সেখানে তারিখ উল্লেখ করা হয়নি। এভাবে কৌশলে সরকারি রাজস্ব ফাকি দিয়ে আত্মসাৎ করেন এ কর্মকর্তা।

এছাড়াও প্রতিবেদনে এমন বেশ কয়েকটি জোত নম্বর উল্লেখ করা হয়েছে। যেমন একদিনেই (০৯-১১-২০২০ইং) রাজাবাড়ী মৌজার ১১৪ নম্বর জোতে ১২২ টাকা, ১৮৭ নম্বর জোতে ৪১ টাকা, ৪৫৯ নম্বর জোতে ৪১ টাকা, ৪৬৩ নম্বর জোতে ৪১ টাকা, ৪৬৮ নম্বর জোতে ৪১ টাকা, ৪৬৬ নম্বর জোতে ১৮৯ টাকা, ৪৬৭ নম্বর জোতে ৯৪ টাকা, ৪৬০ নম্বর জোতে ১২৭ টাকা ও ৩৬৫৫ নম্বর জোতের বিপরীতে ১৭৬ টাকা ভূমি উন্নয়ন কর আদায় করেন। কিন্তু আদায় করা টাকার আর আর নম্বর ও তারিখ উল্লেখ করে জোতে টাকা ওয়াশিল করার বিধান থাকলেও তিনি তা করেননি।

এবিষয়ে রাজবাড়ি ইউনিয়ন ভূমি উপ-সহকারী কর্মকর্তা আল আমীন কোন মন্তব্য করতে রাজি হননি।

শ্রীপুর উপজেলা ভুমি অফিসের কানুনগো মতিয়ার রহমান জানান, আমি অফিস পরিদর্শনকালে যেসকল অনিয়মের প্রমাণ পেয়েছি তা প্রতিবেদন আকারে জমা দিয়েছি। এর আগেও ভূমি অফিসের অন্যান্য কর্মকর্তা-কর্মচারী ও সেবাপ্রত্যাশীরা ভূমি উপ-সহকারী কর্মকর্তা আল-আমীনের বিরুদ্ধে চরম অসদাচরণের অভিযোগ করলে আমরা তাকে সতর্ক করেছি।

এ বিষয় শ্রীপুর উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি আব্দুল্লাহ আল মামুন জানান, আল আমিনের নানা অনিয়মের বিষয়ে জেলা প্রশাসক বরাবর প্রতিবেদন দাখিল করা হয়েছে।

গাজীপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব), মোহাম্মদ মশিউর রহমান জানান, তার বিরুদ্ধে নিয়ম মেনে আইনী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

সর্বশেষ নিউজ