৭, জুলাই, ২০২২, বৃহস্পতিবার

শ্রীপুরে শ্বাসরোধে পোশাককর্মীকে হত্যা ! ঝোপের ভেতর মরদেহ

আরিফ প্রধান, গাজীপুর : গাজীপুরের শ্রীপুরে ঝোপের ভেতর থেকে পোষাককর্মীর অর্ধগলিত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।নিহতের গলায় উড়না দিয়ে পেচানো ছিলো। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে তাকে শ্বাসরোগ করে হত্যা করা হয়েছে।

নিহত ময়না খাতুন (৩০) পাবনা ইশ্বরদী থানার আটঘরিয়া এলাকার আ.মান্নানের মেয়ে। তিনি একা বরমীর ইউনিয়নের গাড়ারন এলাকায় ভাড়া থেকে শ্রীপুর পৌরসভার দক্ষিণ ভাংনাহাটী এলাকার হ্যামস নামক পোশাক কারখানায় কাজ করতেন। শনিবার কারখানায় যাবার পর আর ফিরে আসেনি। ২৮ জুন সোমবার দুপুরে মরদেহটি তার ভাড়া বাড়ির পাশে একটি ঝোপের ভেতর পরে থাকতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দেয়।মরদেহের পাশে কারখানার পরিচয় পত্র, ব্যাগ, খাবারের বক্সও পরে রয়েছিলো।

তার এক ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে, তারা দেশের বাড়ি পাবনাতে থাকেন। প্রায় এক বছর আগে স্বামীর সাথে বিচ্ছেদ হয়েছিলো।

শ্রীপুর মডেল থানার এস আই মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ জানান, মৃতদেহের গলায় উড়না দিয়ে ফাঁস লাগানো ছিলো। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। তবে ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন ও তদন্তের পর বিস্তারিত জানা যাবে।

শ্রীপুর মডেল থানার (ওসি) খোন্দকার ইমাম হোসেন জানান, মরদেহের সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। ময়না তদন্তের রিপোর্ট ও তদন্তের পর বিস্তারিত ও প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে।

সর্বশেষ নিউজ