২৮, অক্টোবর, ২০২১, বৃহস্পতিবার

শ্রীপুরে স্ত্রী ও ৩ সন্তান রেখে কিস্তির চাপে প্রতিবন্ধী কৃষকের আত্নহত্যা !

আরিফ প্রধান : গাজীপুরের শ্রীপুরে সাংসারিক অভাব অনটন ও সমিতি থেকে নেয়া ঋণের টাকার কিস্তির চাপে হতাশায় আত্নহত্যা করেছে শারীরিক প্রতিবন্ধী এক কৃষক। আত্নহত্যাকারী রুবেল সরকার (৩৫) তেলিহাটি ইউনিয়নের ডুমবাড়ি চালা গ্রামের আ.মোতালেবের সন্তান। তার স্ত্রী ও ছোট ছোট ৩ টি সন্তান রয়েছে।

স্বজনরা জানান, শারীরিকভাবে প্রতিবন্ধী রুবেল সরকার ঠিকমতো কাজকর্ম করতে পারতেননা একটু আধটু কৃষিকাজ করে কোনরকমে স্ত্রী সন্তানদের ভরণপোষণ করতো। সাংসারিক অভাব অনটনের কথা ভেবে তিনি পিদিম এনজিও থেকে ২২ হাজার টাকা ঋন নেয়। অভাব অনটন ও করোনাকালীন সময়ে ঠিকমতো কিস্তির টাকা দিতে পারছিলেননা তিনি। এজন্য এনজিওএর লোকজন তাকে কিস্তির মাধ্যমে টাকা পরিশোধের জন্য প্রতিনিয়ত চাপ দিতে থাকেন।

১ মে শনিবার তারিখ অনুযায়ী কিস্তি দেয়ার কথা ছিলো, কিন্তু রুবেল কিস্তির টাকা যোগার করতে না পেরে লজ্জা হতাশায় বেলা ১২টার সময় বাড়িতেই বিষপান করেন। এসময় তার স্ত্রী গোঙরানির শব্দ পেয়ে ডাকচিৎকার শুরু করলে আশেপাশের লোকজন এসে তাকে শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। সেখানে চিকিৎসা দিয়ে অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করেন। ময়মনসিংহ নেয়ার পথে দুপুর ২ টায় ভালুকা এলাকায় তার মৃত্যু হয়।

শ্রীপুর মডেল থানার উপপরিদর্শক (এস আই) জিন্নাহ জানান, স্বজনদের আবেদনের প্রেক্ষিতে রুবেলের মরদেহ দাফনের জন্য তার পরিবারের লোকজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

সর্বশেষ নিউজ