১, জুলাই, ২০২২, শুক্রবার

সপ্তাহে ১১ কোটি টাকা পারিশ্রমিক পাবেন এমবাপ্পে!

ঘরের ছেলে ঘরেই থাকার সিদ্ধান্ত নিলেন। টোপ গিললেন কাতারের ধনকুবের নাসের আল খোলাইফির। আরও একবার প্রিয় ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদে যাওয়ার সব পথ মাড়িয়ে দিলেন এমবাপ্পে।

ঘরের মাঠে মেৎসের বিপক্ষে মৌসুমের শেষ ম্যাচের ঠিক আগে ‘২০২৫’ লেখা জার্সি হাতে এমবাপ্পে ঘোষণা দেন, ‘আমি প্যারিসেই থাকছি।’

এর পর ক্লাবের পক্ষ থেকে জানানো হয়, পিএসজির সঙ্গে তিন বছরের চুক্তি নবায়ন করেছেন ফরাসি ফরোয়ার্ড। চুক্তির মেয়াদ ২০২৫ সালের ৩০ জুন পর্যন্ত।

অথচ এ ফরাসি ফরোয়ার্ড স্প্যানে যাবেন আশায় কত আয়োজন করে রাখে রিয়াল মাদ্রিদ।

ইউরোপের গণমাধ্যমের খবর, কিলিয়ান এমবাপ্পের যোগদানের পরিকল্পনায় ক্লাবের অর্থনৈতিক মডেলে পরিবর্তন এনেছেন পেরেজ। ক্লাবের প্রতিশ্রুতিশীল খেলোয়াড়দের বিক্রি করে তহবিল সংগ্রহ করেছেন। গত দুই মৌসুমে দলবদলের বাজারে প্রায় কোনো খরচ করেননি। এই অবস্থায় এমবাপ্পে না বলে দেওয়ায় সব আয়োজন অযথা বলে প্রমাণিত হলো। ক্ষতি হলো লা লিগার দলটির।

বিষয়টি মেনে নিতে রাজি নন রিয়াল মাদ্রিদ সভাপতি ফ্লোরেন্তিনো পেরেজ।

এতো কিছুর পরও সিদ্ধান্তে এমবাপ্পের এই ইউটার্ন কেন? সে প্রশ্নে অবশ্যই পিএসজির সঙ্গে তার বিশাল অঙ্কের চুক্তির কথাই সামনে আসছে।

ফরাসি মিডিয়ার খবর, আকাশচুম্বী বেতন-বোনাসের পাশাপাশি আরও বেশ কিছু শর্তে চুক্তি নবায়ন করেছেন তিনি। শুধু চুক্তি সইয়ের বোনাস হিসাবেই ৩০ কোটি ইউরো ও বছরে কর পরিশোধের পর ১৫ কোটি ইউরো বেতন পাবেন এমবাপ্পে। এ ছাড়া তার চাওয়া অনুযায়ী ক্রীড়া পরিচালক লিওনার্দোকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। মরিসিও পচেত্তিনোকে বিদায় করে নতুন কোচ হিসাবে জিনেদিন জিদানকে নিয়োগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। শোনা যাচ্ছে, ব্রাজিলীয় সতীর্থ নেইমারকেও পিএসজিতে আর চান না এমবাপ্পে! নেইমারের জায়গায় স্বদেশি উসমান দেম্বেলেকে দলে চান তিনি।

স্কাই স্পোর্টসের রিপোর্ট অনুযায়ী, প্রতি সপ্তাহে এক মিলিয়ন ব্রিটিশ পাউন্ড (প্রায় ১১ কোটি টাকা) পারিশ্রমিক পাবেন এমবাপ্পে। শুধু তাই নয়, নতুন চুক্তির সময় সাইনিং বোনাস হিসেবে এমবাপ্পের অ্যাকাউন্টে ১০০ মিলিয়ন পাউন্ড (প্রায় এক হাজার ৯৩ কোটি ৩২ লাখ টাকা) জমা করে দিয়েছে প্যারিসের ক্লাবটি।

সপ্তাহে এক মিলিয়ন পাউন্ড পারিশ্রমিক হলে, বছরে এমবাপ্পের মোট পারিশ্রমিক দাঁড়াচ্ছে ৫২ মিলিয়ন পাউন্ড (৫৭২ কোটি টাকা), যা এমবাপ্পেকে বিশ্বের সবচেয়ে বেশি পারিশ্রমিকপ্রাপ্ত ফুটবলারে পরিণত করেছে।

এমন আকাশছোঁয়া দামের চুক্তির পর পর ফ্রান্সের বিশ্বকাপজয়ী তারকা বলেন, ‘পিএসজির সঙ্গে চুক্তি নবায়ন করেছি আমি। অবশ্যই আমি আনন্দিত। সর্বোচ্চ পর্যায়ে পারফর্ম করতে এই ক্লাব আমাকে প্রয়োজনীয় সব কিছুই দেবে। যে দেশে জন্মেছি, বেড়ে উঠেছি, বিকশিত হয়েছি সেখানে খেলা চালিয়ে যেতে পেরে অনেক খুশি আমি।’

সর্বশেষ নিউজ