২১, সেপ্টেম্বর, ২০২১, মঙ্গলবার

“সৌদি আরবকে টিকা দেয়া উচিত হবে না ভারতের”

ভারতের কাছ থেকে সিরাম ইনস্টিটিউটে উৎপাদিত অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনা টিকার এক কোটি ডোজ নিচ্ছে সৌদি আরব। খুব শিগগিরই সৌদি আরবে সেই টিকার চালান পৌঁছানোর কথা। কিন্তু সরকারের এমন সিদ্ধান্তে সৌদি প্রবাসী ভারতীয়রা নাখোশ।

প্রবাসীরা বলছেন যে, সৌদি আরবকে টিকা দেয়া উচিত হবে না ভারতের। সৌদি আরব ফ্লাইট নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়া ও আটকেপড়া প্রবাসীদের জীবনমান উন্নয়নে পর্যাপ্ত ব্যবস্থা নেয়ার পরই দেশটিকে টিকা দেয়া উচিত ভারতের।

সম্প্রতি এ নিয়ে দুই দেশের মধ্যে কূটনৈতিক টানাপোড়েন সৃষ্টি হয়েছে।

চলতি সপ্তাহে প্রায় দুই ডজন দেশের ওপর থেকে প্রবেশ নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে রিয়াদ। তবে ওই তালিকায় নেই ভারতের নাম। করোনার বিস্তার রোধে পাঁচ মাস আগে সৌদি আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চলাচলে নিষেধাজ্ঞা জারি করে। এতে বিপাকে পড়েছে সৌদি আরবে থাকা অন্তত ২৬ লাখ ভারতীয় প্রবাসী।

সৌদি সরকার গত সেপ্টেম্বরে ফ্লাইট নিষেধাজ্ঞা জারি করায় দেশটির ভেতরে ও বাইরে আটকা পড়েন লাখ লাখ ভারতীয়। এরপর থেকেই নিজেদের দুর্দশার কথা জানিয়ে ভারতীয় মিশনগুলোতে তারা মেসেজ পাঠাচ্ছেন।

অনেকেই বলছেন, পরিস্থিতির সমাধান না হলে সৌদির কাছে টিকা পাঠানো উচিত নয় ভারতের। অনেকের অভিযোগ, ভারত সরকার তাদেরটা না দেখে শুধু টিকা বিক্রির ব্যাপারে। যদিও দিল্লি বলছে, টিকা রপ্তানি আর ফ্লাইট নিষেধাজ্ঞাকে মেলাতে রাজি নন তারা।

তবে এই ইস্যুতে দিল্লি-রিয়াদের সম্পর্কে কিছুটা তিক্ততা সৃষ্টি হয়েছে। ভারত বলছে, দুটি দেশ কৌশলগত অংশীদার এবং ভারতীয় কর্মীদের দুর্ভোগ কমাতে রিয়াদের সহানুভূতিশীল হতে হবে। যদিও রিয়াদের দিক থেকে আশাব্যঞ্জক কোনও ইঙ্গিত পায়নি দিল্লি।

সর্বশেষ নিউজ