২৯, অক্টোবর, ২০২০, বৃহস্পতিবার

শরীয়তপুরে প্রতিবন্ধিকে মারধর করলো এক প্রভাবশালী, বসতভিটা থেকে উচ্ছেদের পায়তারা

নাছির আহম্মেদ আলী,শরীয়তপুর: ভেদরগঞ্জে এক ভিক্ষুক ও প্রতিবন্ধিকে মারধর করলো প্রভাবশালী। সবজিসহ বিভিন্ন প্রজাতির গাছ কেটে দিয়েছে প্রভাবশালীরা। বসতভিটা থেকে উচ্ছেদের পায়তারা করছে বলে অভিযোগ করেছে আহত শাহিদা বেগম। মামলা করতে সাহস পাচ্ছে না প্রতিবন্ধি পরিবার। প্রভাবশালী দের ভয়ে এলাকা থেকে বের হতে ও পারছে না। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বলছেন, আমরা লিখিত অভিযোগ পেলে প্রযোজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করবো ।

উত্তর চরকুমারীয়া এলাকার হানিফ মোল্লা, ইউনিয়র আওয়ামীলীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্ত বিষয়ক সম্পাদক নাজমুল ইসলাম খান ও স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, শরীয়তপুর জেলার ভেদরগঞ্জ উপজেলার চর কুমারীয়া ইউনিয়নের উত্তর চর কুমারীয়া এলাকার মৃত সিরাজুল ইসলাম বালীর স্ত্রী প্রতিবন্ধি শাহিদা বেগম (৪৫) তার স্বামীর ক্যান্সারে মৃত্যুর পর উপার্জন করার মত কেউ না থাকায় তার নাবালক ২ সন্তানকে নিয়ে ভিক্ষাবৃতি করে জীবিকা নির্বাহ করে আসছেন। পাশা পাশি স্বামীর রেখে যাওয়া ৬ শতক জমির উপর খুপড়ী ঘর করে বসবাস করে আসছেন। কিন্তু তার এই ক্ষুদ্র জমির উপর তার চাচাতো ভাই ও স্থানীয় প্রভাব শালী আব্দুল জলিল বালীর দৃষ্টি পড়ে। গত বুধবার সন্ধ্যায় ভিক্ষুক শাহিদা বেগমের সবজী বাগানসহ বিভিন্ন প্রজাতের গাছ কেটে ফেলে। এর পর প্রতিবন্ধি শাহিদা বেগম এর প্রতিবাদ করলে আব্দুল জলিল বালী ক্ষিপ্ত হয়ে ভিক্ষুকের ঘরে ঢুকে মারধর করে। এতে সে মারাতœক আহত হয়। প্রভাবশালীদের ভয়ে গত ২ দিনে ও চিকিৎসা ও মামলা করতে যেতে সাহস পায়নি। প্রবাশালীদের ভয়ে নিজ ঘরে যন্ত্রনায় কাতরাচ্ছেন প্রতিবন্ধি শাহিদা বেগম।

আহত ভিক্ষুক শাহিদা বেগমের মা জায়দা বেগম বলেন , আমার মেয়ে তার স্বামী মারা যাওয়ার পর তার অবুজ সন্তান দের নিয়ে অন্যেও বাড়ী থেকে ভিক্ষা করে খায়। সাবামীর রেখে যাওয়া বসত বিটা টুকুতে প্রভাব শালী আব্দুল জলিল বালীর লোভ পড়েছে। তাই সে বাড়ীর সামনে থাকা সবজি বাগান সহ বিভিন্ন গাছ কেটে নিয়েছে। প্রতিবাদ করায় আমার মেয়ের ঘরে ঢুকে আব্দুল জলিল বালী ও তার স্ত্রী লাকী বেগম মারধর করেছে। ভয়ে চিকিৎিসা ও মামলা করতে যেতে পারছিনা।
ভিক্ষুক শাহিদা বেগম বলেন, বসত ভিটা টুকু নিয়ে যাওয়ার জন্য আব্দুল জলিল বালী বার বার আমাকে শারিরিক নির্যাতন করে। গত বুধবার আমার ঘরে ঢুকে তার লাকী বেগম আমার গলা টিপে ধরে। তার স্বামী আমাকে মারধর করে। এতে আমি মারাতœক অসুস্ত হই।
স্থানীয় প্রবাবশালী আব্দুল জলিল বালী বলেন , এটা আমাদের পৈত্রিক সম্পতি। তাদের নামে ভুলক্রমে বি আর এস রেকর্ড হয়েয়ে গেছে। আমরা এর জন্য আদালতে মামলা কলেছি। আমরা আমাদের জমি থেকে তাকে সরে যেতে বলেছি। কিন্তু সে ধারালো বটি দিয়ে আমাদের দিকে তেড়ে আসে। আমারা তার বটি জব্দ করে রেখে সখিপুর থানা পুলিশকে জানিয়েছি।

সখিপুর থানার (তদন্ত) ওসি ওবায়দুল হক বলেন, এ ব্যাপারে আমাদের কাছে কেউ অসেনি। তাই বিষয়টি আমাদের জানা নেই। এলাকাবাসী বলতে পারবে।
চরকুমারীয়া ইউনিয়নের সাবেক মেম্বার ও ইউনিয়র আওয়ামীলীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্ত বিষয়ক সম্পাদক নাজমুল ইসলাম খান আমরা মারধরের কথা শুনে গিয়েছিলাম। বিষয়টি আমরা স্থানীয়ভাবে মিমাংসা করে দেব।
এ ব্যাপারে ভেদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তারভীর আল নাসিফ বলেন, আমি ঘটনা টি এখন ও শুনিনি। সাংবাদিকদের মাধ্যমে জানলাম। তদন্ত করে ব্যবস্থা নিব।

সর্বশেষ নিউজ