৫, মার্চ, ২০২৪, মঙ্গলবার
     

ইসরাইল মুসলিম বিশ্বের এক নম্বর শত্রু ছিল: ইরান

ইসরাইলকে আবারও মুসলিম বিশ্বের এক নম্বর শত্রু হিসেবে ঘোষণা করেছে ইরান।

ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী নাফতালি বেনেত সংযুক্ত আরব আমিরাত সফরে আসার পর এক প্রতিক্রিয়ায় ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সাঈদ খাতিবজাদেহ এ ঘোষণা দিয়েছেন। খবর পার্সটুডের।

ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র বলেছেন, ইসরাইল মুসলিম বিশ্বের প্রধান শত্রু ছিল, আছে এবং থাকবে।

তিনি বলেছেন, বিগত ৭০ বছর ধরে মুসলিম ও আরব দেশগুলোতে যে অবৈধ সরকার নিরাপত্তাহীনতা, উত্তেজনা ও যুদ্ধের প্রধান উৎস হিসেবে কাজ করেছে, তার প্রধানমন্ত্রীকে একটি মুসলিম দেশের পক্ষ থেকে আমন্ত্রণ জানিয়ে নিয়ে আসার এ ঘটনা ফিলিস্তিনি জাতিসহ বিশ্বের সব স্বাধীনচেতা জাতি চিরকাল ঘৃণাভরে স্মরণ রাখবে।

ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র বলেন, পবিত্র আল-আকসা বা বায়তুল মুকাদ্দাস মুসলিমবিশ্বের প্রথম কিবলা, যা বর্তমানে ইহুদিবাদীদের দখলে রয়েছে।

গোটা মুসলিমবিশ্ব কখনই তাদের প্রথম কিবলা ইসরাইলিদের জবরদখল থেকে মুক্ত করার স্বপ্ন পরিত্যাগ করবে না।

ইরানের এ মুখপাত্র বলেন, মধ্যপ্রাচ্যের তাবেদার মুসলিম শাসকগুলো যতই ইসরাইলের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিক করুক না কেন, এ অঞ্চলের জনগণ কোনো দিন ইহুদিবাদীদের মুসলিম বিদ্বেষ ও শত্রুতা ভুলে যাবে না এবং তারা চিরকাল এই দখলদার সরকারের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিকীকরণের বিরোধিতা করে যাবে।

ইহুদিবাদী ইসরাইল মধ্যপ্রাচ্যে তার অবৈধ শাসনকে স্থায়িত্ব দিতে পারে এমন কোনো কর্মকাণ্ডে জড়িত হওয়া থেকে তিনি এ অঞ্চলের তাবেদার শাসকদের সতর্ক করে দেন।

ইহুদিবাদী ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী নাফতালি বেনেত রোববার রাতে সংযুক্ত আরব আমিরাত সফর করেছেন। বেনেতের আরব আমিরাত সফরের প্রতিবাদ জানিয়েছে ফিলিস্তিনের ইসলামি জিহাদ আন্দোলন। এ সফরকে ফিলিস্তিনি জাতির প্রতি আমিরাতের বিশ্বাসঘাতকতা বলে উল্লেখ করেছে সংগঠনটি।

               

সর্বশেষ নিউজ