১৪, জুন, ২০২৪, শুক্রবার
     

শক্তিশালী বেলজিয়ামের জালে এক হালি গোল

রাশিয়া বিশ্বকাপের পরেও টানা ৩ বছর ফিফা র‌্যাংকিংয়ে শীর্ষস্থান দখল করে রেখেছিল বেলজিয়াম।

বর্তমানে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে দলটি। আর ফুটবলের এমন পরাশক্তি কি না হজম করল ৪ গোল!

র‌্যাংকিংয়ে ১০ নম্বর দল নেদারল্যান্ডস ৪-১ গোলে বিধ্বস্ত করেছে বেলজিয়ানদের। তাও আবার বেলজিয়ানদের মাঠেই!

উয়েফা নেশন্স কাপে শুক্রবার রাতে নিজেদের মাঠে ডাচদের মুখোমুখি হয় বেলজিয়াম।

ম্যাচে বার্সেলোনা তারকা মেমফিস ডিপাই করেছেন জোড়া গোল। বাকি দুই গোল করেন স্টিভেন বার্গুইন এবং ডেনজেল ডামফ্রিজ। বেলজিয়ামের হয়ে একমাত্র গোলটি করেন মিকি বাতসুয়াই।

এ জয়ের সঙ্গে প্রতিবেশি দেশের বিপক্ষে গত ২৫টি বছরের জয়ের খরা কাটাল নেদারল্যান্ডস। সর্বশেষ ১৯৯৭ সালে বেলজিয়ামকে হারিয়েছিল নেদারল্যান্ডস।

আর এ পরাজয়ের পর ৬ বছর ধরে রাখা রেকর্ড হাতছাড়া করল বেলজিয়াম। এ দীর্ঘ সময় ধরে ঘরের মাঠে অপরাজিত ছিল তারা।

৫ গোলের ম্যাচের ৩৯ মিনিট পর্যন্ত কোন জাল ভেদ করতে পারেনি কোনো দল। ৪০তম মিনিটে এসে স্বাগতিক দর্শকদের স্তব্ধ করে দেন স্টিভেন বার্গুইন। বক্সের বাইরে থেকে দুর্দান্ত এক শটে বেলজিয়ামের জালে বল জড়ান তিনি।

দ্বিতীয়ার্ধ শুরু হতেই ব্যবধান বাড়ান মেমফিস ডিপাই। ৬০ তম মিনিটে স্কোরলাইন ৩-০ করেন ডেনজেল ডামফ্রিজ।
এর পাঁচ মিনিট পরেই বেলজিয়ামের জালে হালি পূরণ করেন ডিপাই।

ইনজুরি সময়ে ৯৩তম মিনিট একটিমাত্র গোল শোধ করেন বেলজিয়ামের মিকি বাতসুয়াই।

বেলজিয়ামের এমন শোচনীয় পরাজয়ের অন্যতম কারণ এদিন গোলরক্ষক হিসেবে একাদশে ছিলেন না থিকো কর্তোয়া আর ২৭তম মিনিটে ইনজুরির শিকার হয়ে মাঠ ছেড়েছিলেন বেলজিয়ান গোলমেশিন রোমেলু লুকাকু।

যে কারণে গোলবার ও আক্রমণ দুই গুরুত্বপূর্ণ জায়গাতেই দুবলর্তা দেখা দেয় বেলজিয়াম শিবিরে। আর সেই সুযোগ ভালোভাবেই লুফে নিয়েছে ডাচরা।

               

সর্বশেষ নিউজ