২৯, মে, ২০২৪, বুধবার
     

কক্সবাজারে পা বিচ্ছিন্ন করে হত্যা, গ্রেপ্তার ৩

জাহাঙ্গীর আলম শামস,কক্সবাজার:
কক্সবাজারের পেকুয়া উপজেলায় আবু ছৈয়দ হত্যা ও পা কেটে নিয়ে যাওয়ার ঘটনায় তিনজনকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব। 

শনিবার (১৪ অক্টোবর) দুপুর ১২টায় কক্সবাজার র‍্যাব-১৫ কার্যালয়ে অধিনায়ক লে. কর্নেল এইচএম সাজ্জাদ হোসেন এক প্রেসব্রিফিংয়ে এসব তথ্য জানান। 

গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন, উপজেলার মগনামা ইউনিয়নের আফজলিয়াপাড়ার নুরুল ইসলামের ছেলে মুজাহিদ (২৮), মৃত নুরুন্নবীর ছেলে আমিরুজ্জামান (২৮) ও তার ছোট ভাই জামিল ইব্রাহিম ছোটন (২৫)।

র‍্যাব-১৫ অধিনায়ক জানান, গেল ১০ অক্টোবর পেকুয়া মগনামা ইউনিয়নের আফজলিয়া পাড়া এলাকায় আধিপত্য বিস্তার ও পূর্ব শত্রুতার জেরে আবু ছৈয়দকে নৃশংসভাবে কুপিয়ে হত্যাসহ তার একটি পা কেটে নিয়ে যায় সন্ত্রাসীরা। বর্বর এ হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তার ও হত্যার সুষ্ঠু বিচারের দাবীতে এলাকাবাসীর মধ্যে ব্যাপক ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। এঘটনায় ১১ অক্টোবর নিহতের ছেলে ছৈয়দ মোহাম্মদ ইমন বাদী হয়ে ২৪ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত ৪/৫ জনকে আসামি করে পেকুয়া থানায় মামলা দায়ের করেন। এ বিষয়ে র‍্যাব-১৫, কক্সবাজার ছায়াতদন্ত শুরু করে এবং ঘটনার সাথে জড়িত আসামিদের গ্রেপ্তারের লক্ষ্যে গোয়েন্দা তৎপরতা বৃদ্ধি করে। 

তিনি আরও জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‍্যাবের একটি ১৩ অক্টোবর মধ্যরাতে পেকুয়ার মগনামা এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে মামলার এজাহারনামীয় ২ নম্বর আসামি ও অন্যতম প্রধান পরিকল্পনাকারী নেজামুল ইসলাম মোজাহিদসহ ৩ জনকে গ্রেপ্তার করে। তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

উল্লেখ্য, গত মঙ্গলবার (১০ অক্টোবর) কক্সবাজারের পেকুয়ায় আলোচিত জয়নাল হত্যা মামলার আসামি আবু ছৈয়দকে (৩৮) কুপিয়ে হত্যা করেছে সন্ত্রাসীরা। এ সময় তার পা কেটে নিয়ে যায় তারা। নিহত আবু ছৈয়দ পেকুয়া মগনামা ইউনিয়নের আফজলিয়া পাড়া এলাকার মৃত বদিউল আলমের ছেলে ।

               

সর্বশেষ নিউজ