১৪, জুন, ২০২৪, শুক্রবার
     

গোপালগঞ্জের মুকসুদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাহিদুর রহমানসহ তিনজনকে হাতুড়িপেটা করে আহত করেছে দুর্বৃত্তরা।

গোপালগঞ্জের মুকসুদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাহিদুর রহমানসহ তিনজনকে হাতুড়িপেটা করে আহত করেছে দুর্বৃত্তরা। মঙ্গলবার বিকেলে মুকসুদপুর উপজেলা পরিষদ চত্বরের কাছে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনার প্রতিবাদ ও দোষীদের গ্রেপ্তারের দাবিতে আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীরা ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের মুকসুদপুর বাসস্ট্যান্ড এলাকা এবং ঢাকা-বরিশাল মহাসড়কের রাঘদি এলাকায় টায়ার জ্বালিয়ে পৌনে এক ঘণ্টা মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেন। এ সময় সড়কে যানজটের সৃষ্টি হয়।

আহত অন্য দুজন হলেন সাহিদুর রহমানের ব্যক্তিগত গাড়ির চালক আয়নাল শেখ (৩৮) ও সহযোগী এনামুল খান (২৫)। এ ঘটনায় পুলিশ আটজনকে আটক করেছে।

মুকসুদপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ আশরাফুল আলম জানান, বেলা সাড়ে তিনটার দিকে মুকসুদপুর আওয়ামী লীগ আয়োজিত শান্তি সমাবেশ শেষ করে দাপ্তরিক কাজের জন্য গাড়িতে করে উপজেলা পরিষদে যাচ্ছিলেন সাহিদুর রহমান। এ সময় পাঁচ-ছয়জনের একটি দল পেছন দিক থেকে সাহিদুর রহমানের ওপর হামলা করে। তাঁর বাঁ হাত ও বাঁ পা হাতুড়িপেটা করা হয়। তাঁকে রক্ষা করতে গেলে আয়নাল শেখ ও এনামুল খানকে পিটিয়ে আহত করা হয়।

এদিকে এ ঘটনার খবর পেয়ে আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীদের মধ্যে ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। এ ঘটনার প্রতিবাদে ও দোষীদের গ্রেপ্তারের দাবিতে তাঁরা বিকেল চারটার দিকে ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের মুকসুদপুর বাসস্ট্যান্ড এলাকা ও ঢাকা-বরিশাল মহাসড়কের রাঘদি এলাকায় টায়ার জ্বালিয়ে মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেন। এ সময় সড়কে প্রায় চার কিলোমিটারজুড়ে যানজট হয়। পরে প্রশাসনের কর্মকর্তা ঘটনাস্থলে গিয়ে দোষীদের গ্রেপ্তার ও বিচারের আশ্বাস দেন। বিকেল পাঁচটার দিকে তাঁরা সড়ক থেকে সরে যান।

মুকসুদপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) শীতল পাল বলেন, এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটজনকে আটক করা হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে।

               

সর্বশেষ নিউজ